তথ্য প্রযুক্তির উন্নয়নে দক্ষিণ এশিয়ার মন্থন অ্যাওয়ার্ড’র জন্য ‘নোয়াখালী ওয়েব’ মনোনীত

দক্ষিণ এশিয়ার তথ্যপ্রযুক্তি উন্নয়নে অবদান রাখায় সম্মানজনক মন্থন অ্যাওয়ার্ড’র জন্য ই-নিউজ এন্ড মিডিয়া ক্যাটগরিতে বাংলাদেশের একমাত্র মিডিয়া হিসেবে বৃহত্তর নোয়াখালী কমিউনিটির পত্রিকা ‘নোয়াখালী ওয়েব’ মনোনীত হয়েছে। এই ক্যাটাগরিতে অন্যান্য মনোনীতরা হচ্ছে, পাকিস্তানের নিউরন নিউজরুম ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম, ভারতের গাওন কি আওয়াজ, শ্রীলঙ্কার আদা দিরানা। অন্যদিকে ১৫টি ক্যাটাগরিতে মনোনীত মোট ৭৭টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে নয়টি ক্যাটাগরিতে বাংলাদেশের ১৩টি প্রতিষ্ঠান গুরুত্বপূর্ণ এ অ্যাওয়ার্ডের জন্য মনোনীত হয়েছে। শনিবার দক্ষিণ এশিয়া ভিত্তিক তথ্য প্রযুক্তির ক্ষেত্রে স্বীকৃতি হিসেবে ‘মন্থন অ্যাওয়ার্ড’ প্রদানকারী কর্তৃপক্ষ চুড়ান্ত মনোনীতদের নাম ঘোষণা করে। আগামি ১৮ ডিসেম্বর নয়াদিল্লিতে ঝাঁকজমকপূর্ণ এক অনুষ্ঠানের মাধম্যে নির্বাচিত প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে দক্ষিণ এশিয়ার গুরুত্বপূর্ণ এই মন্থন অ্যাওয়ার্ড ২০১০ প্রদান করা হবে বলে কর্তৃপক্ষ ঘোষণা দিয়েছে। অনুষ্ঠানে দক্ষিণ এশিয়ার বিশিষ্ট ব্যক্তিরা উপস্থিত থাকবেন।

মন্থন অ্যাওয়ার্ডের জন্য মনোনীত বাংলাদেশের প্রতিষ্ঠান গুলো হচ্ছে, ই-বিজনেস এন্ড এন্টারপ্রাইজ ক্যাটাগরিতে কেয়ার বাংলাদেশ’র তথ্য তরী, একই ক্যাটাগরিতে বাংলাদেশ টেলিসেন্টার নেটওয়ার্কের অনলাইন প্লাটফ্রম এমএসএমই.কম.বিডি; ই-এনভাইরনমেন্ট ক্যাটাগরিতে ইউএনডিপি’র কম্পারেন্সিভ ডিজাষ্টার ম্যানেজমেন্ট প্রোগ্রামের (সিডিএমপি) কমিউনিটির লোকজনের মধ্যে মোবাইল ফোন ভিত্তিক দ্রুত সতর্ক বিস্তার, একই প্রতিষ্ঠানের ডিজাষ্টার ম্যানেজমেন্ট ইনফরমেশন নেটওয়ার্ক পোর্টাল ও ইয়ং পাওয়ার ইন সোস্যাল এ্যাকশনের (ইপসা) শিপব্রেকিং ইন বাংলাদেশ; ই-হেলথ ক্যাটাগরিতে ম্যানেজমেন্ট ইনফরমেশন সিস্টেমের (এমআইএম-হেলথ) মোবাইল ফোনে স্বাস্থ্য সেবা, একই ক্যাটাগরিতে আমাদের গ্রাম’র এজি ব্রেষ্ট কেয়ার ই-হেলথ প্রোগ্রাম; ই-সাইন্স ক্যাটাগরিতে বিজ্ঞানী.অর্গ; ই-গভর্নেন্স ক্যাটাগরিতে বাংলাদেশ সুগার এন্ড ফুড ইন্ডাষ্ট্রিজ কর্পোরেশনের (বিএসএফআইসি) ডিজিটাল ক্যান প্রচিউরমেন্ট সিস্টেম (ই-পোর্জি);

ই-নিউজ এন্ড মিডিয়া ক্যাটাগরিতে ডিজিটাল ডেভলপমেন্ট ফাউন্ডেশন লিমিটেড’র বৃহত্তর নোয়াখালী কমিউনিটির পত্রিকা ‘নোয়াখালী ওয়েব’; ই- লোকালাইজেশন ক্যাটাগরিতে বাংলা টেকনলজিস’র বাংলা ক্যাটকুলেটর; ই-ইনকুশন ক্যাটাগরিতে ইয়ং পাওয়ার ইন সোস্যাল এ্যাকশন (ইপসা) ও ইনফরমেশন কমিউনিকেশন এন্ড টেকনোলজি রিসোর্স সেন্টার অন ডিজাবিলিটির (আইআরসিডি) ডিজিটাল টকিং বুক এন্ড ডিজিটাল টকিং ড্রামা; ই-এডুকেশন ক্যাটাগরিতে সিলেটের শাহজালাল ইউনিভার্সিটি অফ সাইন্স এন্ড টেকনোলজির (এসইউএসটি) পেপারলেস এ্যাডমিশন অফ শাহজালাল ইউনিভার্সিটি অফ সাইন্স এন্ড টেকনোলজি (এসইউএসটি)।

জানাগেছে, মন্থন অ্যাওয়ার্ড প্রথমে ২০০৪ সালে প্রদান করা শুরু হয় ভারতে তথ্যপ্রযুক্তির উন্নয়নে জড়িত প্রতিষ্ঠানগুলোকে উৎসাহিত করার জন্য। আর এখন দক্ষিণ এশিয়ার সার্কভূক্ত সব দেশগুলোর মধ্যে মন্থন অ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হয়। বাংলাদেশ থেকে পুরস্কার প্রাপ্ত প্রতিষ্ঠানগুলো এ পুরস্কার থেকে কর্মেক্ষেত্রে আরও উৎসাহিত হবে এবং এদেশে আরো নতুন নতুন তথ্যপ্রযুক্তি ভিত্তিক উদ্যোগ সৃষ্টি হবে বলে আশা প্রকাশ করা হচ্ছে। এরআগে ২০০৯ সালে বাংলাদেশে থেকে ই-কালচার এন্ড এন্টারটেইনম্যান ক্যাটাগরিতে লেমন২৪.কম; ই-হেলথ ক্যাটাগরিতে জিজ্ঞাসা-৭৬৭৬; ই-এডুকেশন ক্যাটাগরিতে এ্যামপাওয়ারিং আন্ডারপ্রিভিলিকড ইয়ুথ ইন বাংলাদেশ থট কম্পিউটার লিটারেসি (সিএলপি); চেয়ারম্যানস ডিসটেনশন ক্যাটাগরিতে ন্যাশনাল পোর্টাল অব বাংলাদেশ মন্থন অ্যাওয়াড অর্জন করে।

ই-নিউজ এন্ড মিডিয়া ক্যাটাগরিতে মনোনীত বাংলাদেশের একমাত্র মিডিয়া ‘নোয়াখালী ওয়েব’ ২০০৫ সালের ১ জুলাই থেকে ‘আপনার কমিউনিটি আপনার সংবাদ’ স্লোগান নিয়ে অনলাইনে কমিউনিটির লোকজনের মধ্যে তাৎক্ষণিক তথ্য সেবা দিয়ে আসছে। ইতোমধ্যে পত্রিকাটি পাঠকদের কাছে ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। বর্তমানে পত্রিকাটি অনলাইনের পাশাপাশি মাসিক ম্যাগাজিন আকারেও প্রকাশিত হচ্ছে।

ইকবাল হোসেন মজনু/নোয়াখালী ওয়েব/৩১ অক্টোবর/আইএইচএম/০২৫৫ঘ

http://www.noakhaliweb.com.bd/index.php?cmd=details_news&newsId=9312

http://www.manthanaward.org/section_synopsis.asp?id=212

About ডিজিটাল বাংলাদেশ

একটি উত্তর দিন