যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিক হিসেবে দ্বৈত নাগরিক হবেন অ্যাপল সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও অ্যাপল গুরু হিসেবে খ্যাত স্টিভ ওজনিয়াক

যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিক হিসেবে দ্বৈত নাগরিক হবেন অ্যাপল সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও অ্যাপল গুরু হিসেবে খ্যাত স্টিভ ওজনিয়াক

অ্যাপলের সহ-প্রতিষ্ঠাতা স্টিভ ওজনিয়াক অস্ট্রেলিয়ার নাগরিকত্ব গ্রহণ করতে যাচ্ছেন। অস্ট্রেলিয়ার নাগরিকত্ব গ্রহণ করার পেছনে রয়েছে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সংযোগ! খবর নিউইয়র্ক টাইমসের।
২৫ সেপ্টেম্বর অস্ট্রেলিয়ান ফাইন্যান্সিয়াল রিভিউকে ওজনিয়াক তাঁর অস্ট্রেলিয়া প্রীতির কথা জানিয়েছেন। সেখানকার নাগরিক হওয়ার প্রক্রিয়ার মধ্যে রয়েছেন বলেও উল্লেখ করেছেন তিনি।
ওজনিয়াক জানিয়েছেন, আমি অস্ট্রেলিয়াকে পছন্দ করি এবং নাগরিক হতে চায়। দেশটিতে জাতীয় ব্রডব্যান্ড নেটওয়ার্ক গড়ে তোলার পরিকল্পনা আমাকে মুগ্ধ করেছে। অস্ট্রেলিয়া নাগরিকত্ব গ্রহণের জন্য এটা একটা বড় কারণ।
উল্লেখ্য, অস্ট্রেলিয়া ৩৭৪ কোটি মার্কিন ডলার ব্যয়ে ন্যাশনাল ব্রডব্যান্ড নেটওয়ার্ক (এনবিএন) গড়ে তোলার ঘোষণা দিয়েছে। ২০২১ সাল নাগাদ অস্ট্রেলিয়ার সব অধিবাসীর কাছে দ্রুতগতির ইন্টারনেট পৌঁছে দিতে এ পরিকল্পনা নিয়েছে। এ প্রকল্পে স্কুল, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও ৯৩ শতাংশ বাড়ি ফাইবার অপটিকের আওতায় আসবে। এছাড়া দুর্গম অঞ্চলে স্যাটেলাইট ও তারবিহীন প্রযুক্তিতে ইন্টারনেট সেবা দেওয়া হবে।
যুক্তরাষ্ট্রের ব্রডব্যান্ড সেবা প্রসঙ্গে ওজনিয়াক জানিয়েছেন, যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ায় যেখানে তাঁর বাড়ি, সেখানে কোনো ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সেবা নেই। যুক্তরাষ্ট্রে সবার কাছে দ্রুতগতির ব্রডব্যান্ড সেবা পৌঁছে দেওয়ার কোনো পরিকল্পনা নেই। সবার কথা না ভেবে আমার জন্য বিশেষ ব্যবস্থা করা হবে আমি এটা চাই না।

 

About বিদ্যুৎ বিশ্বাস

একটি উত্তর দিন