ফেসবুক সদরদপ্তর সফরে বিসিএস-বেসিস এর একগুচ্ছ প্রস্তাব

ফেসবুক সদরদপ্তর সফরে বিসিএস-বেসিস এর একগুচ্ছ প্রস্তাব

বাংলা ভাষায় ফেসবুক, বাংলাদেশে আঞ্চলিক অফিস স্থাপন ও স্থানীয় ভাবে গবেষণা ও উন্নয়নের মাধ্যমে লোকাল অ্যাপ্লিকেশন তৈরি করে দেশের তরুণ প্রজন্মের জন্য জনপ্রিয় অনলাইন সামাজিক যোগাযোগ নেটওয়ার্ক ফেসবুক-এ শিক্ষা সহায়ক টুলস প্রচলনের আহ্বান জানিয়েছে বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতি (বিসিএস) এবং বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস)।

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জনাব জুনাইদ আহমেদ পলকের নেতৃত্বে ১৭ মে, শনিবার আমেরিকার সিলিকন ভ্যালিতে অবস্থিত ফেসবুকের সদর দপ্তর পরিদর্শন শেষে আনুষ্ঠানিক বৈঠকে এই প্রস্তাব তুলে ধরেন বিসিএস সভাপতি ও কম্পিউটার সোর্স ব্যবস্থাপনা পরিচালক এএইচ এম মাহফুজুল আরিফ এবং বেসিস সভাপতি ও এখনই ডটকম প্রধান নির্বাহী শামীম আহসান।

photo

এসময় বিসিএস পরিচালক আলী আশফাক, ড্যাফোডিল কম্পিউটার্স লি: এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো: সবুর খান, এবং বেসিস মহাসচিব রাসেল টি. আহমেদ উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে বাংলাদেশের ফেসবুক ব্যবহারকারী সচেতনতা বৃদ্ধিতে প্রশিক্ষণ, আউটসোর্সিংকে ফেসবুক মিডিয়ার সাথে ট্যাগ করা, এবং ফেসবুকের মাধ্যমে ক্ষুদ্র মাঝারি শিল্পের উদ্যোক্তাদের সম্পৃক্ত করে বিকিকিনির পদ্ধতি সংযুক্ত করার প্রস্তাব করা হয়।

সভায় ফেসবুক বাংলাদেশে তার কার্যক্রম শুরু করলে বাংলাদেশ সরকার অনলাইন পেমেন্ট গেটওয়ে চালু করে দেয়া হবে বলে জানান আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জনাব জুনাইদ আহমেদ পলক। ফেসবুকে বাংলাদেশের তরণদের আগ্রহ এবং বহুমুখী ব্যবহারে বাংলাদেশে কিভাবে ফেসবুক জনপ্রিয় হচ্ছে তা তুলে ধরেন তিনি। বাংলাদেশে ফেসবুকে বর্তমানে ৩.৫ কোটি ব্যবহারকারী আছে জানিয়ে বৈঠকে জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, আগামী ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশে ফেসবুক ব্যবহারকারীর সংখ্যা ১০ কোটিতে পৌঁছাবে।

বৈঠকে ফেসবুক পরিচালকদের বাংলাদেশ সফর করার আমন্ত্রণ জানান আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জনাব জুনাইদ আহমেদ পলক।  মন্ত্রীর আহ্বানে সাড়া দিয়ে শিগগিরই বাংলাদেশ সফর করার পাশপাশি বিসিএস ও বেসিস এর পক্ষ থেকে যৌথভাবে উপস্থাপিত প্রস্তাব পূরণে আশ্বাস দেন ফেসবুক এর হেড অব পলিসি প্রোগাম লিসা ফস্টার।

About অঞ্জন দেব

একটি উত্তর দিন