পর্ণোগ্রাফির দায়ে ভারতের ৩৯ ওয়েবসাইট ব্যান করার নির্দেশ

পর্ণোগ্রাফির দায়ে ভারতের ৩৯ ওয়েবসাইট ব্যান করার নির্দেশ

পর্ণোগ্রাফি শেয়ার করার দায়ের ভারতের ৩৯টি ওয়েবসাইট ব্যান করার নির্দেশ দিয়েছে ভারত সরকার। গত ১৩ জুন দেশটির ডিপার্টমেন্ট অব টেলিকম [ডিওটি] ইন্টারনেট সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানগুলোকে [আইএসপি] এই নির্দেশ দেয়। তবে কি কারণে ও কোন আইনে ওয়েবসাইটগুলো ব্যান করা হচ্ছে সেটি সুনির্দিষ্ঠভাবে জানায়নি ডিওটি।

ডিওটি’র ওয়েবসাইটগুলোর ঠিকানা উল্লেখ করে আইএসপিকে দেওয়া নির্দেশনায় বলা হয়, এই ওয়েবসাইটগুলো অতিদ্রুত ব্লক করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তাই দ্রুত এই ওয়েবসাইটগুলো ব্লক করে দেওয়া হোক’। যদি কেউ এই ব্লক ওয়েবসাইটগুলোতে ভিজিট করে তাহলে খালি পেজ দেখাবে অথবা ‘অনৈতিক কনটেন্ট থাকায় ওয়েবসাইটটি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে’ লেখা দেখাবে। ব্যান করার ওয়েবসাইটগুলোর বেশিরভাগই ওয়েব ফোরাম এবং ফাইল শেয়ারিং ও সংরক্ষণ করার ওয়েবসাইট, যেখানে অনেক ব্যবহারকারী পর্ণোগ্রাফি কনটেন্ট শেয়ার ও ডাউনলোড লিংক দেয়। তবে কিছু কিছু ওয়েবসাইট নন-পর্ণোগ্রাফি কনটেন্টও শেয়ার করে।

ভারতে যেখানে শিশু পর্ণোগ্রাফি দেখা ও শেয়ার করার অনৈতিক, সেখানে অ্যাডাল্ট পর্ণোগ্রাফি নিষিদ্ধ নয়। ব্লক ওয়েবসাইটগুলো ভারতের বাইরে থেকেই পরিচালিত হয়। যেহেতু ভারতের আইনে বাইরের দেশের ওয়েবসাইট বন্ধ করার কোনো বিধান নেই তাই আইএসপি প্রতিষ্ঠানগুলো ওয়েবসাইট ব্লক করতে অপারগতা প্রকাশ করছে।

ডিপার্টমেন্ট অব টেলিকম এর এক কর্মকর্তা জানান, সাইবার সিকিউরিটি কো-অর্ডিনেশন কমিটির দেওয়া সিদ্ধান্তেই আইএসপিগুলোকে এই নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। তবে এর পেছনের কারণ বলা হয়নি। সেন্টার ফর ইন্টারনেট অ্যান্ড সোসাইটির পরিচালক সুনিল আব্রাহাম বলেন, পর্ণোগ্রাফি ওয়েবসাইট বন্ধ করা সরকারের আওতার বাইরে। কারণ দেশের আইনে বাইরের ওয়েবসাইট ব্লক করার কোনো আইন নেই। তবে সরকার পর্ণোগ্রাফি কনটেন্ট যারা তৈরি করে তাদেরকে এই কনটেন্টগুলো সরিয়ে ফেলার জন্য কথা বলতে পারে। – ইন্ডিয়া টাইমস

About কমজগৎ ডেস্ক

একটি উত্তর দিন