ডব্লিউএসআইএস পুরস্কার পেল বিএনএনআরসি

ডব্লিউএসআইএস পুরস্কার পেল বিএনএনআরসি

WSISবাংলাদেশ এনজিওস নেটওয়ার্ক ফর রেডিও অ্যান্ড কমিউনিকেশন (বিএনএনআরসি) ২০১৬ সালের জাতিসংঘ কর্তৃক আয়োজিত তথ্য সমাজ বিষয়ক বিশ্ব সম্মেলন পুরষ্কার অর্জন করেছে। সুইজারল্যান্ডের জেনেভায় আয়োজিত ডব্লিউএসআইএস ফোরামে গত ৩ মে এই পুরস্কার প্রদান করা হয়। ITU, UNESCO, UNCTAD, UNDP ও জাতিসংঘের সহযোগী সংস্থাগুলি (WIPO, UNDESA, FAO, ILO, ITC, UNODC, UNEP,UPU, WMO, WHO, WFP, UN Women and the UN Regional Commission) সম্মিলিতভাবে এই ফোরামের আয়োাজন করেছে। বাৎসরিক ভিত্তিতে আয়োজিত এই ফোরামে ডব্লিউএসআইএস-এর ১১টি কর্মসূচির নীতিগত ও প্রযুক্তিগত দিকের উদ্ভূত বিষয়গুলি, নানামুখী সহযোগিদের উপস্থিতিতে তুলে ধরা হয়। উল্লেখ্য যে জাতিসংঘ ভিত্তিক ইকোসকের ২০১৪/২৭ সিদ্ধান্ত অনুসারে বিশ্ব তথ্য সমাজের লক্ষ্যমাত্রা বাস্তবায়নের অগ্রগতি পর্যালোচনা ও ফলো-আপের কথা বলা হয়েছে, যাতে বিশ্ব সভায় তথ্য সমাজের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যের পরিপূরক সেরা প্রকল্পগুলি সকলের কাছে উপস্থাপন এবং সেরা প্রকল্পগুলিকে বাৎসরিক পুরষ্কারের জন্য মনোনীত করার ওপর গুরুত্ব আরোপ করা হয়েছে।
বাংলাদেশ এনজিওস নেটওয়ার্ক ফর রেডিও এন্ড কমিউনিকেশন (বিএনএনআরসি) কর্তৃক বাস্তবায়িত কমিউনিটি মিডিয়া ও সাংবাদিকতায় যুব নারী- বাংলাদেশের গ্রামীণ সম্প্রচার সাংবাদিকতায় নতুন যুগের উন্মেষ প্রকল্পটি এবছরের (২০১৬) তথ্য সমাজ বিষয়ক বিশ্ব সম্মেলন পুরষ্কার অর্জন করেছে। প্রকল্পটি ডব্লিউএসআইএস-এর কর্মসূচি-৯ (গণমাধ্যমের)-এর আওতাভূক্ত এবং  নেদারল্যান্ডসভিত্তিক আন্তর্জাতিক সংস্থা ফ্রি প্রেস আনলিমিটেড কর্তৃক সহায়তাপ্রাপ্ত। ২০১৬ সালের ১০ মার্চ ভোটদানের ব্যাপক প্রক্রিয়া শেষে বিএনএনআরসি’র উক্ত প্রকল্পটি শুধুমাত্র সর্বাধিক ভোট প্রাপ্ত প্রকল্পটির একটি নয়, বরং ৫টি সর্বোচ্চ ভোট প্রাপ্ত প্রকল্পগুলির মধ্যেও সর্বোচ্চ স্থান অর্জন করেছে। প্রতিযোগিতায় বাছাইকৃত ৩১১টি প্রকল্পে ২,৪৫,০০০ সদস্য ভোট প্রদান করেছেন ,যার মধ্য থেকে ১৮টি প্রকল্প চ’ড়ান্তভাবে বিজয়ী ও ৭০টি প্রকল্প রানারস-আপ হিসাবে চ্যাম্পিয়ন ঘোষিত হয়।
বিএনএনআরসি-র এই পুরষ্কার বাংলাদেশ তথা বিশ্বের সকল কমিউনিটি রেডিও’র  ক্ষেত্রে প্রথম আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি। পুরস্কার গ্রহণের প্রাক্কালে প্রদত্ত এক বার্তায় বিএনএনআরসি’র প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এএইচএম বজলুর রহমান এ্ই পুরস্কার প্রদানের জন্য সংশ্লিষ্ট বিচারকমন্ডলীকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, এই পুরস্কার প্রদানের মাধ্যমে আমাদের কাজ বিশ্বসভায় স্বীকৃতি পেল। বিএনএনআরসি’র কর্মীবৃন্দের নয়, এই পুরস্কার বাংলাদেশের ১৬টি কমিউনিটি রেডিওতে কর্মরত ৬০ জন যুবা নারী সাংবাদিকের; যারা গণমাধ্যমে “কন্ঠহীনের কণ্ঠস্বর” তুলে আনার জন্য নিরলসভাবে কাজ করে চলেছেন।
২০১৩-২০১৫ সালের মধ্যে বাস্তবায়িত এই প্রকল্পের আওতায় ৩টি ব্যাচে বাংলাদেশের গ্রামাঞ্চলে উপরোক্ত নারী সাংবাদিকগণ বিএনএনআরসি’র তত্ত্বাবধানে সম্প্রচার সাংবাদিকতাসহ গণমাধ্যমের বিভিন্ন শাখায় নিবিড় প্রশিক্ষণ লাভ করে কমিউনিটি রেডিও ও স্থানীয় সংবাদপএে সাংবাদিকতায় নিয়োজিত হয়েছেন। ফেলোশিপ কার্যক্রমের আওতায় তাঁরা সর্বমোট ৮০০ রেডিও অনুষ্ঠান প্রযোজনা ও ৫০০টি ফিচারধর্মী প্রতিবেদন স্থানীয় সংবাদপএে প্রকাশ করেন। উল্লেখ্য, এ সকল অনুষ্ঠান ও প্রতিবেদনে বিষয়বস্তু হিসাবে স্থান পেয়েছে নারী ও শিশুস্বাস্থ্য, বাল্যবিবাহ, নারীর প্রতি সহিংসতা, সামাজিক বৈষম্য ও প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর নানাবিধ দাবী দাওয়া, বঞ্চনা ও অধিকারের কথা। সম্প্রচারসহ বিভিন্ন  গণমাধ্যমে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তির সফল ব্যবহার এবং এতে নারী সাংবাদিকদের জন্য কাজ করার সুযোগ ও পরিবেশ সৃষ্টি করা গেলে তা যে সাংবাদিকতায় বৈপ্লবিক পরিবর্তন আনতে পারে প্রান্তিক জনগোষ্ঠী থেকে আগত (যাদের ৪০ জনই দলিত সম্প্রদায়ভ’ক্ত) বাংলাদেশের নারী সাংবাদিকদের জন্য তার প্রমাণ ও স্বীকৃতি স্বরূপ বিশ্ব তথ্য সমাজ সম্মেলন (ডব্লিউএসআইএস)-এর এই পুরস্কার।
বিশ্ব তথ্য সমাজ সম্মেলনের মূল লক্ষ্য হচ্ছে, এমন একটি গণমুখী, উন্নয়ন-কেন্দ্রিক ও সকলের অংশগ্রহনে সমৃদ্ধ তথ্য  সমাজ বিনির্মানের স্বপ্ন, আকাঙ্খা ও অঙ্গীকার বাস্তবায়ন করা যেখানে প্রত্যেকে তথ্য সৃজন, অংশগ্রহণ, ব্যবহার ও বিনিময় করতে পারবে। ডব্লিউএসআইএস ফোরাম-২০১৬ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি কাজে নিয়েজিত জনগোষ্ঠীর সর্বোচ্চ বিশ্ব সমাবেশ। ডব্লিউএসআইএস প্রকল্প পুরষ্কার ২০১৬ প্রতিযোগিতা এমন একটি প্ল্যাটফর্ম তৈরি করে যাতে চিহ্নিত ও উপস্থাপিত হয় সাফল্যের সেরা গল্পগুলি, যেগুলি একইভাবে অন্যত্রও বাস্তবায়িত হতে পারে। এর ফলশ্রুতিতে জনগণকে স্থানীয়ভাবে ক্ষমতায়িত করা, সকলকে প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণের সুযোগ করে দেওয়া এবং সহযোগিদের প্রচেষ্টাকে স্বীকৃতি দেওয়া সম্ভব হবে যার মাধ্যমে  তারা ডব্লিউএসআইএস লক্ষ্যসমূহ অর্জনে তাদের অঙ্গীকার পূরণ ও সমাজে বাড়তি প্রণোদনা যোগ করবে।

About Sohel Rana

একটি উত্তর দিন