ই-ক্যাবের যাত্রা শুরু

ই-ক্যাবের যাত্রা শুরু

বাংলাদেশে ই-কমার্স সেক্টরে উন্নতির লক্ষ্য নিয়ে যাত্রা শুরু করল ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ই-ক্যাব)। ইতোমধ্যে ঢাকা, চট্টগ্রাম এবং সিলেটের প্রায় ৭০টি প্রতিষ্ঠান ই-ক্যাবের সদস্য হয়েছে।

জাতীয় প্রেস ক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে শনিবার বিকেলে সংগঠনটির আত্মপ্রকাশ হয়।

সংবাদ সম্মেলনে ই-ক্যাবের সভাপতি রাজিব আহমেদ মূলপ্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।

রাজিব বলেন, ‘আমরা এমন এক বাংলাদেশ দেখতে চাই যেখানে প্রতিটি গ্রামের মানুষ অনলাইনে তাদের পণ্য কেনাবেচা করবে। আমাদের পর্যটন শিল্প, শিক্ষাসহ সবক্ষেত্রে ই-কমার্সের ছোঁয়া লাগবে। দেশের প্রতিটি জেলার বিখ্যাত পণ্যসমূহ অনলাইন শপিংসাইটের মাধ্যমে চলে যাবে সারাবিশ্বে। এ লক্ষ্যকে সামনে রেখেই যাত্রা শুরু করছে ই-ক্যাব।’

তিনি বলেন, ‘কয়েক শ’ ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান থাকলেও আইন ও অবকাঠামো না থাকায় নিরাপদ লেনদেন করা সম্ভব হচ্ছে না। এমন কোনো উপযুক্ত প্রতিষ্ঠান নেই যারা ই-কমার্সের প্রতারণা রোধে কাজ করছে। এ সব সমস্যাসহ পণ্য এবং সেবা সরবরাহ সমস্যা সমাধানে কাজ করবে ই-ক্যাব।’

অনলাইন ব্যবসায়ীর বড় সমস্যা হচ্ছে সময় মতো গ্রাহকের কাছে পণ্য পৌঁছতে না পারা। তাই এ সমস্যা সমাধানে ডাক বিভাগকে সম্পৃক্ত করার পরামর্শ দেন শিক্ষা সচিব এন আই খান।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন, সংগঠনের সহ-সভাপতি সৈয়দা গুলশান ফেরদৌস, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল ওয়াহেদ তমাল, যুগ্ম সম্পাদক মীর শাহেদ আলী প্রমুখ।

About অঞ্জন দেব

One comment

  1. Pingback: jesse

একটি উত্তর দিন