অ্যাসিস্ট্যান্স ফর ব্লাইন্ড চিল্ড্রেন (এবিসি) এর হাতে অনুদান দিলো ফুডপান্ডা

অ্যাসিস্ট্যান্স ফর ব্লাইন্ড চিল্ড্রেন (এবিসি) এর হাতে অনুদান দিলো ফুডপান্ডা

foodpanda Donates to ABC Foundationবাংলাদেশের সবচেয়ে বড় অনলাইন খাদ্য সরবরহকারী সংস্থা ফুডপান্ডা বাংলাদেশ বিগত রমজান মাসে শেয়ার হোপ  নামে একটি ক্যাম্পেইনে অ্যাসিস্ট্যান্স ফর ব্লাইন্ড চিল্ড্রেন-এবিসি এর সাথে কাজ করেছে। অ্যাসিস্ট্যান্স ফর ব্লাইন্ড চিল্ড্রেন-এবিসি একটি অলাভজনক প্রতিষ্ঠান যারা পঙ্গু শিশু বিশেষত দৃষ্টি প্রতিবন্ধী ও স্বল্পদৃষ্টি সম্পন্ন শিশুদের নিয়ে কাজ করে।
শেয়ার হোপ ক্যাম্পেইনটি জুলাই মাসের ৪ তারিখ শুরু হয়ে ১৫ দিন যাবৎ পরিচালিত হয় এবং এটি সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে বহুলভাবে প্রচারিত হয়। ক্যাম্পেইনটির আইডিয়া ছিলো খুবই সহজ, এর মাধ্যমে ফুডপান্ডার নতুন এবং পুরাতন গ্রাহকদের ফুডপান্ডা অ্যাপ অথবা ওয়েবসাইটের মাধ্যমে খাবার অর্ডার দেবার জন্য অনুরোধ জানানো হয়। ৪ থেকে ১৮ জুলাই এর মধ্যবর্তী সময়ে প্রাপ্ত প্রত্যেকটি অর্ডারের একটি নির্দিষ্ট অংশ এবিসি-কে দান করা হয়। ফুডপান্ডার পক্ষ থেকে এই উদ্যোগটি গ্রহণ করা হয় যেন হাজারো শিশু, যারা সম্পূর্ণভাবে এই পৃথিবীর সৌন্দর্য উপভোগ করা থেকে বঞ্চিত, তাদের সাথে কিছুটা আনন্দ ভাগাভাগি করে নেওয়া যায়।
অনুদান হস্তান্তর অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ফুডপান্ডা মার্কেটিং হেড সাকেরিনা খালেদ, সঙ্গে আরো উপস্থিত ছিলেন এবিসি এর ভাইস প্রেসিডেন্ট হাবিবুল্লাহ খান এবং কমিটি মেম্বার জয়নুল আবেদিন, কাজী হুমায়ূন কবীর এবং সানজানা ফরিদ। অনুষ্ঠানে ফুডপান্ডা এবং এবিসি ভবিষ্যতে তাদের স¤পর্ক জোরদার করার জন্য আরো ক্যা¤েপইনের ব্যাপারে উদ্যোগ নেবার ব্যাপারে আলোচনা করেন।
ফুডপান্ডা একটি আন্তর্জাতিক অনলাইন ফুড অর্ডারিং মার্কেটপ্লেস যেখানে ক্রেতারা তাদের আশেপাশের এলাকায় অবস্থিত ফাস্টফুড অথবা রেস্টুরেন্টের বিশাল তালিকা থেকে তাদের পছন্দসই খাবার খোঁজা, পছন্দ করা এবং অর্ডার করতে পারবেন। ফুডপান্ডা বৃহত্তম ইন্টারনেট ইনকিউবেটর রকেট ইন্টারনেট এর একটি ভেঞ্চার এবং এটি ২০১৩ সালে বাংলাদেশে প্রতিষ্ঠিত হয়। পাঁচটি মহাদেশে ৪০ টিরও বেশি দেশে ফুডপান্ডার কার্যক্রম রয়েছে। বর্তমানে ঢাকা, চট্টগ্রাম এবং সিলেটে ফুডপান্ডা তাদের কার্যক্রম চালাচ্ছে। ফুডপান্ডা সম্পর্কে আরো জানতে ভিজিট করুন www.foodpanda.com.bd

About Sohel Rana

একটি উত্তর দিন